সোমবার, ২০ সেপ্টেম্বর ২০২১ খ্রীষ্টাব্দ | ৫ আশ্বিন ১৪২৮ বঙ্গাব্দ



সেই কাউন্সিলর কাকলিসহ ৪ জনকে অভিযুক্ত করে চার্জশিট



বিজ্ঞাপন

নিউজ ডেস্ক: ছাতক পৌরসভার বিতর্কিত মহিলা কাউন্সিলর তাসলিমা জান্নাত কাকলি ও তার স্বামী মাছুম আহমদ, নোমান এমদাদ কানন ও কার্জনসহ ৪ জনকে চাঁদাবাজির মামলায় অভিযুক্ত করে আদালতে চার্জশিট দাখিল করেছেন মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা। মঙ্গলবার বিকালে সুনামগঞ্জ আদালতে চার্জশিট দাখিল করা হয়।

জানা যায়, ছাতক পৌরসভার ৪, ৫ ও ৬ নম্বর ওয়ার্ড এলাকায় ব্যাটারিচালিত ইজিবাইক থেকে স্থানীয় নারী কাউন্সিলর ও তার স্বামী চাঁদাবাজি করে আসছে দীর্ঘদিন ধরেই। গত ১৮ আগস্ট পৌর মেয়রের কাছে একটি লিখিত অভিযোগ করেন ইজিবাইকচালক আতিকুল মিয়া, নূরুল হোসেন ও বিরাজ আলী।

গত ২২ আগস্ট অনুষ্ঠিত পৌর পরিষদের বিশেষ সভায় বিষয়টি উত্থাপন করে উপস্থিত ১১ সদস্যের মধ্যে ১০ জনের সম্মতিতে ওই নারী কাউন্সিলরের বিরুদ্ধে তীব্র নিন্দা প্রস্তাব গৃহীত হয়। কিন্তু চাঁদাবাজি বন্ধ না হওয়ায় ২৬ আগস্ট অনুষ্ঠিত পরিষদের অপর এক সভায় তার বিরুদ্ধে শাস্তিমূলক ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য স্থানীয় সরকার মন্ত্রণালয়ে সুপারিশ পাঠানোর সিদ্ধান্ত গ্রহণ করে পৌর পরিষদ। নারী কাউন্সিলর ও তার সহযোগীদের বিরুদ্ধে ছাতক থানায় পরিষদের পক্ষ থেকে একটি মামলা দায়ের সিদ্ধান্ত নেয়া হয় সভায়।

গত ২৬ আগস্ট ওই নারী কাউন্সিলর, তার স্বামী মাছুম আহমদসহ চারজনকে আসামি করে পৌরসভার অফিস সহায়ক দীপ্ত বণিক বাদী হয়ে ছাতক থানায় মামলা দায়ের করেন। মামলায় মহিলা কাউন্সিলর তাসলিমা জান্নাত কাকলিকে প্রধান আসামি ও তার স্বামী মাছুম আহমদ, নোমান এমদাদ কানন ও কার্জনকে আসামি করা হয়।

এ ব্যাপারে মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা ছাতক থানার পরিদর্শক (তদন্ত) মিজানুর রহমান জানান, মামলায় ৪ জনকে অভিযুক্ত করে আদালতে চার্জশিট দাখিল করা হয়েছে।