সোমবার, ২০ সেপ্টেম্বর ২০২১ খ্রীষ্টাব্দ | ৫ আশ্বিন ১৪২৮ বঙ্গাব্দ



বিয়ানীবাজারে মাইকে ঘোষণা দিয়ে দু’গ্রামবাসীর সংঘর্ষ, ইউপি চেয়ারম্যানসহ আহত ৩০



বিজ্ঞাপন

বিশেষ প্রতিবেদক :: সিলেটের বিয়ানীবাজারে মাইকে ঘোষণা দিয়ে দুই গ্রামবাসীর মধ্যে রক্তক্ষয়ী সংঘর্ষে ইউপি চেয়ারম্যানসহ উভয় পক্ষের অন্তত ৩০ জন আহত হয়েছেন।

শনিবার (২৪ জুলাই) দুপুর দেড়টার দিকে উপজেলার আলীনগর বাজারে আলীনগর ও টিকরপাড়া গ্রামবাসীর মধ্যে এই সংঘর্ষ হয়।

এলাকাবাসী সূত্রে জানা গেছে, বৃহস্পতিবার (২২ জুলাই) স্থানীয় আলীনগর বাজারে বিয়ানীবাজার-সিলেট সড়কে গাড়ি পার্কিং নিয়ে টিকরপাড়ার গ্রামের বাসচালক নজর উদ্দিনের সঙ্গে আলীনগর এলাকার যুবক মুসাদ্দেক আলীর হাতাহাতি হয়। এক পর্যায়ে দুপক্ষের লোকজন দেশীয় অস্ত্র নিয়ে রক্তক্ষয়ী সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়েন। ওইদিন আলীনগর বাজারের কয়েকটি দোকান ও গাড়ি ভাঙচুর করে দুপক্ষের লোকজন।

ওই ঘটনার জের ধরে শনিবার সকালে আলীনগর গ্রামের দুই যুবক মামুন আহমদ ও এলিম আহমদকে একা পেয়ে পিটিয়ে আহত করে টিকরপাড়া গ্রামের কয়েকজন যুবক। এরপর দুপুরে এলাকার মসজিদের মাইকে ঘোষণা দিয়ে দুই গ্রামবাসী সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়েন।

ঘণ্টাব্যাপী সংঘর্ষে উভয় পক্ষের অন্তত ৩০ জন আহত হন। এ সময় দুপক্ষের লোকজন আলীনগর বাজারে বেশ কয়েকটি দোকান ও গাড়ি ভাঙচুর করা হয়। সংঘর্ষ থামাতে ইটপাটকেলে আঘাতে গুরুতর আহত হয়েছেন আলীনগর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মামুনুর রশিদ।

খবর পেয়ে বিয়ানীবাজার থানাপুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। বর্তমানে এলাকায় থম থম অবস্থা বিরাজ করছে। এলাকায় অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন রয়েছে।

বিয়ানীবাজার থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) হিল্লুল রায় বলেন, ‘খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে সংঘর্ষ থামিয়েছে। অপ্রীতিকর ঘটনা এড়াতে ঘটনাস্থলে অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে। সংঘর্ষে উভয় পক্ষের বেশ কয়েকজন আহত হয়েছেন। এখনো কেউ থানায় অভিযোগ নিয়ে আসেনি।’