শুক্রবার, ২ ডিসেম্বর ২০২২ খ্রীষ্টাব্দ | ১৮ অগ্রহায়ণ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ



মৌলভীবাজারে ভোটের আগের দিন সরে দাঁড়ালেন বিএনপির মেয়র প্রার্থী



বিজ্ঞাপন

নিজস্ব প্রতিবেদক :: মৌলভীবাজারে পৌর নির্বাচনে বিএনপির মেয়র প্রার্থী মো. অলিউর রহমান নির্বাচন থেকে সরে দাঁড়ানোর ঘোষণা দিয়েছেন।

নির্বাচনের পরিবেশ ২৪ ঘণ্টার ভেতর ফিরিয়ে না আনা এবং বিএনপির নেতৃবৃন্দের ওপর হামলাকারী সন্ত্রাসীদের গ্রেপ্তার না করার অভিযোগে তিনি এই ঘোষণা দেন।

শুক্রবার (২৯ জানুয়ারি) সকাল সাড়ে ১১টায় মৌলভীবাজার প্রেসক্লাবে সংবাদ সম্মেলনে তিনি এ ঘোষণা দেন।

বিএনপি প্রার্থী তার লিখিত বক্তব্যে বলেন, ‘সরকার দলীয় প্রার্থী শত শত বহিরাগত সন্ত্রাসী শহরে সমাগম করেছে। এবং আমার দলের সম্ভাব্য পোলিং এজেন্টদেরকে ফোনে ও বাড়িতে গিয়ে সন্ত্রাসীরা হুমকি দিচ্ছে। এ পরিস্থিতিতে আগামীকাল অনুষ্ঠিত পৌর নির্বাচনে মেয়র পদ থেকে সরে দাঁড়াচ্ছি।’


বিএনপি প্রার্থী আরও বলেন, ‘বুধবার (২৭ জানুয়ারি) জেলা বিএনপি সভাপতি এম নাসের রহমানের নেতৃত্বে গণসংযোগ শেষে বিএনপির সিনিয়র নেতৃবৃন্দ শাহমোস্তফা রোডের ইসমাইল রেস্টুরেন্টে ছিলেন। এসময় পরিকল্পিতভাবে হামলা চালায় ছাত্রলীগ। এতে ১০ থেকে ১২ জন নেতাকর্মী আহত হন। ছাত্রলীগের এই তাণ্ডবে এবং পুলিশের নিষ্ক্রিয়তায় কারণে দলের সমর্থক ও কর্মীবৃন্দ আতঙ্কগ্রস্থ হয়। এ ঘটনায় অভিযোগ দেবার পরও রিটার্নিং কর্মকর্তা বা প্রশাসন কোনো ব্যবস্থা নেয়নি।’

সংবাদ সম্মেলনে জেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক মিজানুর রহমান বলেন, ‘রাতে ১ নম্বর ওয়ার্ডের এজেন্ট স্বাগত দাশ চৌধুরীসহ বেশ কয়েকজন এজেন্টের বাসায় পুলিশ তল্লাশি চালায়। এবং জেলা স্বেচ্ছাসেবক দল নেতা ও পোলিং এজেন্ট জীবান আহমদকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ।’

এ সময় জেলা বিএনপির সহ সভাপতি ফয়জুল করিম ময়ূন, সাধারণ সম্পাদক মিজানুর রহমান, সদর উপজেলা সভাপতি মোয়াজ্জেম হোসেন মাতুকসহ জেলার সিনিয়র নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

এর আগে গতকাল বৃহস্পতিবার মৌলভীবাজার প্রেসক্লাবে একটি সংবাদ সম্মেলন করে ২৪ ঘণ্টার এই আল্টিমেটাম দেন বিএনপির এই মেয়র প্রার্থী।