বুধবার, ৭ ডিসেম্বর ২০২২ খ্রীষ্টাব্দ | ২৩ অগ্রহায়ণ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ



বেনজির ভুট্টোর সম্পদ কে কত পেয়েছেন…
নিউজ ডেস্ক

নিউজ ডেস্ক



বিজ্ঞাপন

পাকিস্তানের প্রয়াত প্রধানমন্ত্রী বেনজির ভুট্টো কি পরিমাণ সম্পদ রেখে গিয়েছিলেন! তা থেকে তার স্বামী, সাবেক প্রেসিডেন্ট আসিফ আলি জারদারি ও সন্তানরা উত্তরাধিকার হিসেবে কতটুকু পেয়েছেন! এ সম্পর্কে বিস্তারিত জানতে চেয়েছে দেশটির সুপ্রিম কোর্ট। মঙ্গলবার প্রধান বিচারপতি মিয়া সাকিব নিসারের নেতৃত্বে তিন বিচারকের বেঞ্চ এ সম্পর্কে একটি নির্দেশনা দিয়েছেন। এর আগে এসব সম্পদের বিস্তারিত জানতে চেয়ে একটি পিটিশন করেছিলেন আইনজীবী ফিরোজ শাহ গিলানি। তিনি লয়ারস ফাউন্ডেশন ফর জাস্টিসের সভাপতি। তার আবেদনে সাবেক প্রেসিডেন্ট জেনারেল (অবসরপ্রাপ্ত) পারভেজ মোশাররফ, আসিফ আলি জারদারি, সাবেক এটর্নি জেনারেল মালিক মুহাম্মদ কাইয়ুম ও জাতীয় জবাবদিহিতা বিষয়ক ব্যুরোর নাম উল্লেখ করেন। এরও আগে আসিফ আলি জারদারি ও তার প্রয়াত স্ত্রী বেনজির ভুট্টোর কি পরিমাণ বিদেশী সম্পদ আছে তার বিস্তারিত জানতে চেয়ে একটি অর্ডার দিয়েছে সুপ্রিম কোর্ট ২৯ শে আগস্ট। অন্যদিকে যখন ক্ষমতায় ছিল পাকিস্তান পিপলস পার্টি (পিপিপি) তখন তারা বেনজির ভুট্টো হত্যা মামলার বিচার কার্যকরভাবে সম্পন্ন করতে ব্যর্থ হয়েছে বলে পাকিস্তানের প্রধান বিচারপতি অভিযুক্ত করেন পিপিপিকে। এক্ষেত্রে বিবাদীপক্ষের আইনজীবী ফারুক এইচ নায়েক আদালতের উদ্দেশ্য নিয়ে প্রশ্ন তোলেন।

তিনি বলেন, শহীদ বেনজির ভুট্টোর এসব বিচার মানে তার সমাধির বিচার করা। তার এ বক্তব্যের পর প্রধান বিচারপতি উদ্বেগ, ক্ষোভ প্রকাশ করেন। তিনি বলেন, আল্লাহর কসম, কে শহীদ বেনজির ভুট্টোর বিচার করতে যাচ্ছে! আমরা তো তার সম্পদের হিসাবটাই শুধু চাইছি। এক পর্যায়ে বিবাদী পক্ষের আইনজীবীদের উদ্দেশে প্রধান বিচারপতি বলেন, বেনজির ভুট্টোকে হত্যা করা হয়েছে। কিন্তু আপনারা তার হত্যার যথাযথ বিচার করতে পারেন নি। জবাবে আইনজীবী নায়েক বলেন, সাবেক প্রধানমন্ত্রী বেনজিরকে হত্যা করা হয়েছিল পারভেজ মোশাররফের শাসনকালে। এ সময় পিপিপির আরেকজন সিনিয়র আইনজীবি সরদার লতিফ খোসা উপস্থিত ছিলেন আদালতে। তিনি আসন ছেড়ে উঠে বলেন, সব অভিযুক্তকে ছেড়ে দেয়া হয়েছে। এর বিরুদ্ধে আপিল সুপ্রিম কোর্টে সিদ্ধান্তের অপেক্ষায় আছে।